নির্ধারণ করে দেওয়া হচ্ছে ডাক্তারের ফি !

চিকিৎসকরা যাতে রোগীর কাছ থেকে ইচ্ছামতো ফি নিতে না পারেন সে জন্য একটি নির্দিষ্ট ফি বেধে দেওয়ার পরিকল্পনা করছে সরকার। সংসদে সরকার দলীয় সংসদ সদস্যের প্রশ্নের জবাবে স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রী জাহিদ মালেক এই তথ্য জানিয়েছেন।

বৃহস্পতিবার বিকেলে স্পিকার ড. শিরীন শারমিন চৌধুরীর সভাপতিত্বে একাদশ জাতীয় সংসদ অধিবেশনে মাহমুদ উস সামাদ চৌধুরীর এক প্রশ্নের জবাবে স্বাস্থ্য মন্ত্রী জানান, চিকিৎসকগণের রোগীদের নিকট হতে ফি নির্ধারণের বিষয়ে উচ্চপর্যায়ের কমিটি গঠনপূর্বক একটি নীতিমালা প্রণয়নের চিন্তা-ভাবনা সরকারের রয়েছে।

সরকারি দলের আরেক সদস্য মো. মোজাফফর হোসেন (জামালপুর-৫) এর অপর এক প্রশ্নের জবাবে মন্ত্রী জানান, ডাক্তারের অভাবে দেশে বিদ্যমান ইউনিয়ন স্বাস্থ্য সেবা ক্লিনিকগুলো পরিত্যক্ত অবস্থায় নেই। কারণ দেশের অধিকাংশ ইউনিয়ন স্বাস্থ্য কেন্দ্রে একজন উপ সহকারী কমিউনিটি মেডিকেল অফিসার (স্যাকমো), একজন ফার্মাসিস্ট ও একজন অফিস সহায়ক কর্মরত আছেন। তবে কেন্দ্রগুলিতে এমবিবিএস ডাক্তারের শূন্য থাকায় গরিব জনসাধারণ উন্নত চিকিৎসা সুবিধা প্রাপ্তি কিছুটা বঞ্চিত হচ্ছে।

মন্ত্রী জানান, দেশে ১০ হাজার ডাক্তার নিয়োগ কার্যক্রম চলমান আছে। নিয়োগ কার্যক্রম সম্পন্ন হলে সরকারি বিধি বিধানের আলোকে তাদের সকলকেই উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স ও ইউনিয়ন স্বাস্থ্য কেন্দ্রে পদায়ন করা হবে। শূন্যপদ দ্রুত পূরণের ক্ষেত্রে প্রধানমন্ত্রীর কঠোর নির্দেশনা রয়েছে। সেই আলোকে অতিশীঘ্রই নিয়োগ কার্যক্রম সম্পন্ন হবে।